কাপালীতেই কাপলো প্রাইম ব্যাংক

প্রাইম ব্যাংকে হারিয়ে পয়েন্ট টেবিলের দ্বিতীয়তে ব্রাদার্স।

“পুরোনো চাল ভাতে বাড়ে “ কিংবা “old is gold”  যেই প্রবাদটাই বলুন না কেন অলক কাপালী হলেন তার পারফেক্ট উদাহরন। কি ব্যাটে কি বলে, দুই ডিপার্টমেন্টেই তার দুর্দান্ত পারফরমেন্সে ব্যাংক পাড়ার দলটি টুর্নামেন্টে প্রথম হারের স্বাদ পেলো। কাপালীর অলরাউন্ড নৈপুণ্যে বৃথা গেলো তরুন নাহিদুলের ৮৮ রানের এক দৃষ্টিনন্দন ইনিংস।

অবশ্য এ ম্যাচে স্পটলাইটটা ছিলো জাতীয় দলে সদ্য ডাক পাওয়া দুই তরুন ক্রিকেটার ব্যাটসম্যান জাকির হাসান ও অলরাউন্ডার আরিফুল হকের উপর। আগের দিনই বাংলাদেশ দলের টি-টুয়েন্টি স্কোয়াডে জায়গা করে নিয়েছেন প্রাইম ব্যাংক ক্রিকেট ক্লাবের এই দু্ই ক্রিকেটার।

তবে ম্যাচের পুরো মনোযোগটা একাই কেড়ে নিয়েছেন অভিজ্ঞ কাপালী। রোববার সাভারে দ্বিতীয় রাইন্ডের ম্যাচে  টস হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে ওপেনিং জুটিতে দলকে ৪৭ রানের দারুণ সূচনা এনে দেন ব্রাদার্সের দুই ওপেনার মিজানুর রহমান এবং জুনায়েদ সিদ্দিকী।  নাহিদুলের বলে লেগ বিফোর হয়ে মিজানুর আউট হলেও মাইশুকুর রহমানকে নিয়ে দ্বিতীয় উইকেটে ৫৪ রানের জুটি গড়েন জুনায়েদ। তবে দ্রুত ৩ উইকেট পড়ে গেলে চাপে পড়ে যায় ব্রাদার্স। এদিন ব্যর্থ ছিলেন ইংলিশ ক্রিকেটার জন সিম্পসন, আউট হয়ে যান ১২ রানেই। পঞ্চম উইকেটে ইয়াসির আলী রাব্বিকে নিয়ে ৯৫ রানের দারুণ এক জুটি গড়ে দলকে বড় সংগ্রহের পথে নিয়ে যান অধিনায়ক কাপালী। ফলে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ২৯৪ রান করে ব্রাদার্স। কাপালীর ৭৯ ছাড়াও ইয়াসির করেন ৬৯ রান। প্রাইম ব্যাংকের পক্ষে ২টি করে উইকেট নেন দেলোয়ার হোসেন ও আরিফুল হক।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১৫৩ রানে ৭ উইকেট খুইয়ে খাবি খাচ্ছিল প্রাইম ব্যাংক। তখনই দলকে খাদের কিনারা থেকে তুলে নেয়ার দায়িত্ব নেন নাহিদুল। দেলোয়ার হোসেনের সঙ্গে ১০৭ রানের জুটি গড়ে দলকে জয়ের পথে নিয়ে এসেছিলেন তিনি। তবে নাহিদুল আউট হলে জয়ের আশা শেষ হয়ে যায়। ফলে ৪৭.৪ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ২৭০ রান করে দলটি। ব্রাদার্সের পক্ষে ৪৬ রানে ৩টি উইকেট নিয়েছেন কাপালী। ২টি করে উইকেট পান খালেদ আহমেদ ও সোহরাওয়ার্দী শুভ।

এই জয়ে ২ ম্যাচে দুটিতেই জিতে টেবিলের ২য় স্থানে অবস্থান ব্রাদার্সের। অন্যদিকে ২ ম্যাচে ১ জয় এবং ১ হারে প্রাইম ব্যাংকের অবস্থান ছয়ে।

তোফায়েল আহমদে খান (প্রতিবেদক), মাঠের খেলা

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *