মাঠের সেরা ৫ স্পিনার

বর্তমান ক্রিকেটে স্পিন বল অন্যতম জনপ্রিয় একটি ফরমেট। এক দশক আগে যখন  টি-২০ ক্রিকেট শুরু হয় তাতে স্পিন বল রাখা হবে কিনা সেটা নিয়েও অনেক প্রশ্ন উঠেছিল।

প্রশ্ন উঠেছিল, বড় ব্যাট এবং ছোট মাঠে আক্রমণাত্মক  ব্যাটসম্যানদের সামনে স্পিন বল কাজে দেবে কিনা। কিন্তু সব প্রশ্ন আর সমালোচনাকে পিছনে ফেলে টি ২০ ক্রিকেটে স্পিন বল একের পর এক সফলতার ইতিহাস বয়ে নিয়ে এসেছে।

৫. আদিল রশিদ

২৯ বছর বয়সী এই স্পিনার ইংল্যান্ডের  সীমিত ওভারের ম্যাচে জায়গা করে নিয়েছেন। রশীদের অগ্রগতি সব আলোচনা সমালোচনাকে পিছনে ফেলেছে। সীমিত ওভারে অসাধারন পারফর্মেন্স সত্ত্বেও ২০০৯ সালের পরে তাকে টেস্ট ক্রিকেটের জন্য ৬ বছর অপেক্ষা করেতে হয়। তিনি পাকিস্থানের বিরুদ্ধে এক ওভারে ৫ উইকেট নিয়ে সবার আলোচনায় আসেন। রশিদ ভালো স্টক ডেলিভারি এবং গুগলি বল করতে পারেন। তার এই উইকেট নেয়ার ক্ষমতার কারণে ইংল্যান্ড দলের তিনি একজন গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড় হয়ে উঠেছেন।

৪. কুলদিপ যাদব

২০১৪ সালের ১৯তম বিশ্বকাপে অসাধারন পারফরমেন্স দিয়ে তিনি সবার নজর কেড়ে ছিলেন। ৬ ম্যাচে ১৪ উইকেট নিয়ে তিনি শীর্ষ উইকেট দখলের খ্যাতি অর্জন করেন।  বেশী সুযোগ না পেলেও  ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে কেকেআর এর পক্ষে তিনি ভালো খেলা উপহার দিতে সক্ষম হন।  তিনি মূলত একজন বামহাতি স্পিনার। তার বল বুঝতে ব্যাটসম্যানদের অনেক ক্ষেত্রেই সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। ধারনা করা হচ্ছে ২০১৯ সালের বিশ্বকাপে তিনি দলের একজন  নির্ভরযোগ্য খেলোয়াড় হতে চলেছেন।

৩. ইয়াশির শাহ

ডোপিং নিষেধাজ্ঞা থেকে  ফিরে  বিশ্বের নাম্বার  ওয়ান টেস্ট বোলার হওয়ার এক অবিশ্বাস উদাহরন হলেন ইয়াশির শাহ। ১৫ বছর বয়সে তিনি প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেট খেলেছেন এবং নয় বছর পর তার আন্তর্জাতিক অভিষেক ঘটে।ইয়াশির পাকিস্থানের ঘরোয়া ক্রিকেটও ভালো পারফরমেন্স করে যাচ্ছিলেন। সাইদ আজমল সাসপেন্ড হলে তিনি জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পান। মুস্তাক আহমেদের পরে তিনিই প্রথম পাকিস্থানি যিনি বোলিং এ টেস্ট র‍্যাংকিং সেরা হয়েছেন। অস্ট্রেলিয়ান স্পিনার ক্লারি গ্রিমমেটের ৮৩ বছরের পুরনো রেকর্ড ভেঙ্গে  টেস্ট ক্রিকেটে ১৫০ টি উইকেট সংগ্রহ করে তিনি ইতিহাস তৈরি করেন। কোন সন্দেহ নেই যে তিনি এখন বিশ্বের সেরা স্পিনারদের মধ্যে একজন।

২. রশিদ খান

যুদ্ধ-বিধ্বস্ত আফগানিস্থান রহস্যজনকভাবে একজন বুদ্ধিমান স্পিনার খুজে পেয়েছে, তিনি আর কেউ নন, রশিদ খান। ইতিহাসে খুব কম লোকই আছেন  যারা মাত্র ১৯ বছর বয়সেই এত ভালো খেলা বুঝতে পারে। ইতিমধ্যে আফগানিস্থানের জন্য তিনি অপরিহার্য একজন হয়ে উঠেছেন এবং সারা বিশ্বে টি-২০ লিগেও জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন। ৫৯৭০০ মার্কিন ডলারের  বিনিময়ে সানরাইজের  হয়ে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগে তিনি দুর্দান্ত পারফরমেন্স করেন। ভাল গতি, অবিশ্বাস্য নির্ভুলতা এবং নির্ভরযোগ্য বৈচিত্র্যের কারণে এই আফগান কিশোরকে ক্রিকেট বিশ্ব গ্রহণ করেছে।

১. ইমরান তাহির

এই প্রজন্মের সেরা স্পিনারদের একজন হিসেবে তাকে ধরা হয়। ইমরান তাহিরের জন্ম পাকিস্থানে। কিন্তু সেখানে তিনি সুযোগ না পেয়ে সাউথ আফ্রিকা চলে যান। এবং তার প্রতিভা সেখানেই প্রস্ফুটিত হয়। তিনি সাউথ আফ্রিকার এ যাবতকালের সেরা স্পিনার। তাহির খুব তাড়াতাড়ি আফ্রিকার ফ্রন্ট লাইন বোলারের মধ্যে সবার উপরে জায়গা করে নেন। তার দর্শনীয় বোলিং এবং দুর্দান্ত পারদর্শিতা ক্রিকেটের পিচকে এক অনন্য রকম রুপ এনে দেয়। এমনকি এই ৩৮ বছর বয়সেও তিনি অতি সুঠাম দেহের অধিকারী এবং আফ্রিকা আরও কয়েক বছর এই স্পিনারকে পেতে চাইবে।

মানিক ইমদাদ (প্রতিবেদক), মাঠের খেলা

 

 

Be the first to comment on "মাঠের সেরা ৫ স্পিনার"

Leave a comment

Your email address will not be published.


*