প্রত্যাশা আছে বলেই হয়ত বারবার হতাশ হতে হচ্ছে টাইগার ফ্যানদের

মুশফিকের অধীনায়কত্ব নিয়ে প্রশ্ন তোলাটা মূলত উঠে এসেছে পরাপর দুই টেষ্ট ম্যাচের সিরিজে হোয়াইট ওয়াশের পরই। যেখানে প্রথম টেষ্টের চেয়ে দ্বিতীয় টেষ্টের হারের ব্যাবধান ইনিংসে।

ফলো অনে থাকা বাংলাদেশ দল আজ তৃতীয় দিনে ব্যাটিং শুরু করে পুরো ১০ উইকেট নিয়ে। স্বভাবতই প্রথম উইকেটের পতন হয় সৌম্য সরকারকে দিয়ে।

দলীয় ২৯ রানে মমিনুল ও ইমরুলের বিদায়ের পর টাইগার ফ্যানদের শেষ ভরসা হয়ে দাড়ায় অধিনায়ক মুশফিক ও মাহমুদুল্লার রিয়াদ। যেখানে মুশফিক আউট হন দলীয় ৯২ রানে। এরপর মাহমুদুল্লাহ ৪৩ করে ফিরলে হোয়াইট ওয়াশের সম্ভাবনা সময়ের ব্যাবধান হয়ে দাড়ায়।

প্রথম ইনিংসের ৭০ করা লিটন দাস ফিরেন ১৮ করে।

১ম দিনে টসে জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক। ব্যাটিংয়ের সুযোগ পেয়ে প্রোটিয়াদের ৪ ব্যাটসম্যান সেঞ্চুরি হাকান। এদের মধ্যে আছেন এলগার (১৩৩), মার্করাম (১৪৩), আমলা (১৩২) ও ডু প্লিসিস (১৩৫)। দ্বিতীয় দিনে ৪ উইকেটে ৫৭৩ করে ইনিংস ঘোষনা করে তারা। আর ১১৮ রান খরচ করে ৩ উইকেটই নেন সুভাসিস রায়। অন্য ১ উইকেট নেন রুবেল হোসেন ১১৩ রান দিয়ে।

জবাবে তামিমবিহীন ব্যাটিং অর্ডারে ধস নেমে আসে ঐ সৌম্য সরকারকে দিয়েই। একমাত্র লিটন দাশের অর্ধশতক ছাড়া বেশিভাগ ব্যাটসম্যানই দু অংকের ঘর ছুতে পারেনি।

ফলাফল বাংলাদেশের হার ইনিংস ও ২৫৪ রান।

কামরুল হাসান শিবলী (প্রতিবেদক), মাঠের খেলা

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *